ইন্দোনেশিয়ার সেই মর্মান্তিক ঘটনা, ৫৩ জন আরোহী নিয়ে নিখোঁজ হওয়া সাবমেরিন থেকে কিছু জিনিস উদ্ধার হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে একটি জায়নামাজ। মূলত কেআরআই নাঙ্গালা-৪০২ নামের সাবমেরিনটির কিছু ধ্বংসাবশেষ উদ্ধার হয়েছে। সেখান থেকে এই
জায়নামাজটি পাওয়া যায়।

বিবিসি সহ বেশ কয়েকটি সনামধন্য নিউজ পোর্টাল থেকে জানা গেছে, নিখোঁজ হওয়া ঐ সাবমেরিনটি ইন্দোনেশিয়ার সমুদ্রে ডুবে গেছে, যা ইন্দোনেশিয়ার নৌবাহিনী নিশ্চিত করেছেন। এছাড়া সে দেশের সামরিক বাহিনী এটাও নিশ্চিত করেছেন যে, ঐ সাবমেরিনে থাকা ৫৩ জনই মারা গেছেন।

নৌবাহিনী প্রধান ইউডো মারগোনো শনিবার জানান, তাদের উদ্ধারকর্মীরা সেই সাবমেরিনের অনেক কিছুই পেয়েছে। যার প্রমাণ স্বরুপ এটা বলা যায়, সাবমেরিনটি ডুবে গেছে। আর তিনি আরো জানান, স্ক্যান মেশিনের সাহায্যে দেখা যাচ্ছে, সেটি ৮০০-৯০০ মিটারে গভিরে চলে গেছে। যা প্রমাণ করে ওখানে অবস্থানরত সবাই মারা গেছে। কারণ ৫০০ মিটারের গভির হলে মানুষের বাচার কথা নয়।’

এই সাবমেরিনটি একটি মহড়ার সময় হঠাৎ করেই বুধবার সকালে বালি উপকূল থেকে নিখোঁজ হয়ে যায়। ধারণা করা হয়, তেলের ট্যাঙ্গকার লিক হয়েই এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।

এদিকে ডুবুরীরা রোবোটের মাধ্যমে পানির নিচ থেকে সাবমেরিনটির কিছু ধ্বংসাবশেষ উদ্ধার করেছে। এর মধ্যে রয়েছে জায়নামাজ, গ্রিজের একটি বোতল ইত্যাদি।