সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের বেলতৈল ইউনিয়নের সাতবাড়িয়া উত্তরপাড়া গ্রামে এক অবাক করা ঘটনা ঘটেছে। একসঙ্গে নিখোঁজ হয়েছেন ননদ-ভাবি। আর এই ঘটনায় পুরো এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। আর ঘটনাটি ঘটেছে গভীর রাতে।

এই ঘটনায় স্থানীয়রা জানিয়েছেন, সেদিন শনিবার তাদের বাড়ির সবাই আলাউদ্দিনের শ্বশুরবাড়ি, উপজেলার চুলধরি গ্রামে বেড়াতে যান। কিন্তু বাড়িতে থাকে শুধু ননদ শারমীন আক্তার ( ১৭) ও ভাবী সুলতানা জ্যোতিকে (১৭)। মূলত এটি আলাউদ্দিন সরকার এর বাড়ি। নিখোজ ভাবী হল আলাউদ্দিনের ছেলে নুরুন্নবীর স্ত্রী। আর ননদ হল আলাউদ্দিনের মেয়ে। ওই দিন গভীর রাতে ননদ-ভাবি মিলে বাড়িতে থাকা স্বর্ণালঙ্কার, ল্যাপটপ ও নগদ অর্থসহ প্রায় সাড়ে ৩ লাখ টাকার জিনিসপত্র নিয়ে উধাও হয়ে যান। রবিবার যখন তারা দুপুরে বাড়িতে ফেরেন, তখন তারা দেখতে পান বাড়ির দরজা খোলা ও ননদ-ভাবি নিখোঁজ।

এই ঘটনায় সুলতানা জ্যোতির স্বামী নুরুন্নবী জানান, ‘আমি মা ও বাবা শনিবার নানার বাড়ি বেড়াতে যাই। কিন্তু বাড়ি ফিরে এসে দেখি আমার বউ ও বোন নিখোঁজ। এই ঘটনায় তিনি কাউকে সন্দেহ করছেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, কেউ জড়িত আছে কিনা তা তিনি নিশ্চিত হয়ে বলতে পারছেন না।

ওই এলাকার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহীদ মাহমুদ খান বলেন, ‘দুই নারী নিখোঁজ হওয়ার ব্যাপারে এখনো তদন্ত চলছে। তদন্ত অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’