গত ২০১৯ সালে সোনালী ব্যাংকের সর্বমোট পরিচালন মুনাফার পরিমাণ ছিল এক হাজার ৭৫০ কোটি টাকা। কিন্তু ২০২০ সালের শেষে এসে এ ব্যাংকের পরিচালন মুনাফা হয়েছে ২ হাজার ১৭৫ কোটি টাকা। যা কিনা এ বছরের সেরা।

করোনার ভেতর যেখানে অন্য রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলো হিমশিম খাচ্ছে, সেখানে সোনালীর ব্যাংকের সাফল্য ইর্ষনীয়। তবে আরেকটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক অগ্রনী ব্যাংকের মুনাফা কিছুটা কমেছে। গত বপছর এ ব্যাংক ৯০০ কোটি টাকা মুনাফা করলেও এবার করেছে ৮৯০ কোটি টাকার মতো। অর্থাৎ ১০ কোটি টাকার ব্যবধান কম করেছে।

এদিকে সোনালী ব্যাংকের এমডি আতাউর রহমানের বক্তব্যে জানা যায়, দেশে করোনা মহামারী চললেও, এর মধ্যে সোনালী ব্যাংকের ঋণ প্রবৃদ্ধি ভালো হয়েছে। যার ফলে এখান থেকে অনেক সুদ আয় হয়েছে। এছাড়া দেশের মানুষ এখন সঞ্চয়পত্রের দিকে ঝুকে পড়ায়, সঞ্চয়পত্র বিক্রি বেড়েছে আগের থেকে প্রায় ৫ গুণ।

এছাড়াও গত বছরের তুলনায় বিভিন্ন খাতে এবার লস কম হয়েছে। যেমন গত বছরের ট্রেজারি কার্যক্রমের লসের তুলনায় এবছরের লোকসান কমেছে। করোনার কারনে গত বছরের তুলনায় এবার ট্রেজারি পন্যের দাম না বাড়ায় ব্যাংকের ট্রেজারি কার্যক্রমে ১ হাজার ৪০০ কোটি টাকা লোকসান থেকে তা ৮০০ কোটি টাকায় নেমে এসেছে।

0000

আজকের জনপ্রিয়

0000