রাজবাড়ি জেলার এক ঐতিহ্যবাহী মাদ্রাসার হেফজোখানায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। মাদ্রাসাটির নাম দারুল উলুম ভাজনচালা দাওরায়ে হাদীস। এই ঘটনায় অনেক ক্ষতি হলেও কুরআন শরীফের কোন ক্ষতি হয়নি।

জানা গেছে, ওই মাদ্রাসার লিল্লাহ বোর্ডিংয়ের হেফজোখানায় ঘুমিয়ে ছিল ঘুমিয়ে থাকা ৪০ জন ছাত্র। সেখানে অনেক কিতাব, হাদীসের বই, শিক্ষার্থীদের পোশাক, লেপ, তোষকসহ প্রায় অর্ধ শতাদিক কুরআন শরীফ ছিল। আজ শুক্রবার ভোর সোয়া ৪টার দিকে সেখানে আগুন লেগে যায়। সেই আগুনে সব পুড়ে ছাই হয়ে গেলেও ৪০ জন ছাত্র ও সব কুরআন শরিফের কোন ক্ষতি হয়নি। কুরআন শরিফে কোন আগুনই লাগেনি।

এই দিকে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ দাবি করেছেন, এই আগুনে প্রায় ১০ লাখ টাকার মত ক্ষতি হয়ে গেছে। তিনি আগুন লাগার ব্যাপারে খুবই হতাশ।

ঠিক কি কারনে আগুন লেগেছিল, তা এখনো জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে রান্নার চুলা থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে। আগুন লাগার পর পরই রাজবাড়ী ফায়ার সার্ভিসে জানানো হলে, তৎক্ষণাৎ কর্মীরা এসে দেড় ঘন্টার মধ্যেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন।