মাটির তলায় বিশাল বিশাল পায়ের ছাপ খুঁজে পেয়েছেন একদল বিজ্ঞানী। একটি বিশেষ ধরনের রাডার ব্যবহার করে ছাপগুলি সনাক্ত করেছেন তারা। ধারণা করা হচ্ছে এগুলির বয়স হবে অন্তত ১২ হাজার বছর।

বিজ্ঞানীদের ধারণা, এই পায়ের ছাপগুলি থেকে জানা যাবে, সে সময় মানুষ ও প্রাণীদের গতিবিধি সংক্রান্ত বেশ কিছু তথ্য। পায়ের ছাপ খুঁজে পাওয়ার বিষয়টি নিয়ে একটি গবেষণাপত্র প্রকাশ পেয়েছে নিউইয়র্কের কর্নেল ইউনিভার্সিটির ওয়েবসাইটে।

গবেষণাপত্রে উল্লেখ করা হয়েছে, পায়ের ছাপের মালিকদের মধ্যে মানুষ ছাড়াও ম্যামথ, স্লথের মতো বড় বড় প্রাণীও রয়েছে। এই জীবশ্মগুলিথেকে মানুষসহ ওই প্রাণীদের ওজন, দেহের গঠনের একটি পরিষ্কার ধারণা পাওয়া যাবে।

বিজ্ঞানী টমাস আর্বান জানিয়েছেন, নিউ মেক্সিকোর ন্যাশনাল মনুমেন্টের সাদা বালির নিচে এই পায়ের ছাপগুলি পাওয়া গিয়েছে। এখানে গ্রাউন্ড-পেনিট্রেট রেডার ব্যবহার করা হয়েছিল।

টমাসের দাবি এই পদ্ধতি ব্যবহার করে অনেক জায়গায় ডাইনোসোরের পায়ের ছাপও পাওয়া যাবে। এমনকি প্রাচীন যুগে মানুষের অনেক পায়ের ছাপও মিলতে পারে। ফলে আরও অনেক তথ্য সামনে আসবে।