চলতি বছর জুন মাসেই ১০৮ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা আসার কথা জানিয়েছিল Xiaomi। অবশেষে ১০৮ মেগাপিক্সেল পেন্টা ক্যামেরাসহ Mi Note 10 আসার বিষয়টি কনফার্ম করল সংস্থা। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে চাইনিজ মডেল মি সিসি নাইন প্রো -এর গ্লোবাল ভার্সান হবে মি নোট ১০।

শাওমি-এর দাবি, এটিই বিশ্বের প্রথম ১০৮ মেগাপিক্সেলের পেন্টা ক্যামেরা। তবে স্মার্টফোনটি শাওমি এর হলেও এর ক্যামেরা সেনসর ডিজাইনের দায়িত্বে ছিল স্যামসাং। চিনা সংস্থা শাওমির সঙ্গে হাত মিলিয়ে এই ১০৮ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা সেনসর তৈরী করেছে স্যামসাং । সংস্থার দাবি, স্মার্টফোনের ক্যামেরার সংজ্ঞা বদলে দেবে এই ক্যামেরা সেনসর। এই ক্যামেরাই ব্যবহার করা হচ্ছে মি নোট ১০-এ।

তবে, এই ফোনটাই চিনের বাজারে মি সিসি নাইন প্রো নামে আসতে চলেছে। এরপর এটি ভারতে প্রকাশ পাবে মি নোট ১০ নামে। দুটি ফোনের ক্যামেরাসহ একাধিক হার্ডওয়্যার এক হলেও গ্লোবাল সংস্করণে প্রসেসর অপেক্ষাকৃত কম শক্তিশালী রাখা হবে। এর ফলে দাম মধ্যবিত্তের সাধ্যের মধ্যেই রাখা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। ভারতে ব্যবসা করা সংস্থাগুলির সঙ্গে প্রতিযোগিতা্য দাড়াতেই এমন কাটছাঁট করছে শাওমি।

এই ফোনের ক্যামেরা সেনসর দিয়ে উচ্চ মানের ২৭ মেগাপিক্সেলের ছবি তোলা যাবে। এ ক্ষেত্রে ৪টি পিক্সেলের সমন্বয় তৈরী হবে এক-একটি পিক্সেল। এর ফলে ছবির রেজোলিউশন কমতে পারে। কিন্তু, ছবি বেশি ঝকঝকে হবে। অনেকটা জুম করলেও ছবি ফাটবে না। কম আলোতেও এর ফলে ভাল ছবি তোলা সম্ভব হবে বলে জানিয়েছে স্যামসাং।

চিনে মি সিসি নাইন প্রো এর দাম ১,৭৯৯ ইয়ান। বাংলাদেশী টাকায় যা প্রায় ২২,০০০ টাকা। কাজেই বাংলাদেশে ফোনের দাম সাধ্যের মধ্যেই রাখা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। আশা করা যাচ্ছে, ভারতের পরপরই বাংলাদেশে মুক্তি পাবে ফোনটি।

এ সংক্রান্ত আরও

                         

 

আরও সংবাদ