মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হাসপাতালগুলোতে করোনায় (কভিড-১৯) শনাক্ত হওয়া রোগীদের মধ্যে একটি উদ্বেগজনক উপসর্গ দেখা দিয়েছে বলে জানা গেছে। অনেক করোনা রোগীদের রক্ত জমাট বেধে মারা যাচ্ছেন। স্থানীয় মার্কিন গণমাধ্যম দ্য আওয়ারকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এমনটা জানিয়েছেন ইউনিভার্সিটির চিকিৎসক ডা. ক্রেইগ কপারস্মিথ।

এদিকে আটলান্টার ইমোরি ইউনিভার্সিটিতে চিকিৎসাধীন ২০ থেকে ৪০ শতাংশ কোভিড-১৯ রোগীদের মধ্যে রক্ত জমাট বাঁধার এই লক্ষণ দেখা গেছে। অ্যান্টিকোয়াগুলেন্টস (রক্তের গাঢ়ত্ব হ্রাসকারী ওষুধ) প্রয়োগের পরও রক্ত জমাট বেধে মারা গেছেন তারা।

করোনা ফুসফুসের পাশাপাশি হৃদযন্ত্র, যকৃৎ, কিডনীসহ শরীরের অন্যান্য অংশও আক্রান্ত করছে বলে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে খবর প্রকাশিত হয়েছে। এর মধ্যে রক্ত জমাট বেঁধে রোগীদের মারা যাওয়ার কথা জানালেন কপারস্মিথ।

এদিকে, ব্রুকলিনের এক হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. পল সন্ডার্স দ্য ডেইলি মেইলকে জানান, তার হাসপাতালেও অনেক করোনা আক্রান্ত রক্ত জমাট বেঁধে মারা গেছেন। কিছু রোগী সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছাড়ার পরও মারা যাওয়ার পেছনে এই রক্ত জমাট বাঁধা দায়ী থাকতে পারে।

সন্ডার্স বলেন, আমরা দেখছি যে, কোভিড-১৯ বড় ও ছোট সকল প্রকারের শিরায় রক্ত জমাট বাঁধার সমস্যা সৃষ্টি করে। রোগীদের দেহের বিভিন্ন অংশে এই লক্ষণ দেখা গেছে।