বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াতের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বিতর্কিত বেশ কিছু পোস্টের জন্য তার নামে মুম্বাইয়ের একটি থানায় মামলা করেছেন এক আইনজীবী।

জানা গেল, কঙ্গনার দিদি রঙ্গোলি চান্দেলের অ্যাকাউন্ট সাসপেন্ড করে দিয়েছে টুইটার। মোরাদাবাদ-এ পাথর ছোঁড়ার ঘটনার প্রেক্ষিতে তিনি একটি বিতর্কমূলক টুইট করেন। আর এই কারণেই তার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ।

তা নিয়ে সরব হয়েছেন নায়িকা কঙ্গনা রানাওয়াত। নেটিজেনদের উদ্দেশে একটি ভিডিও বার্তায় দিদির হয়ে জবাব দিয়েছিলেন কঙ্গনা।

ভিডিওতে কঙ্গনা দাবি করেন রঙ্গোলি সব মুসলিমদের জঙ্গি বলে মনে করেন না। অভিনেত্রী এও জানান যে অনেক সোশাল মিডিয়াতেই মুসলিমদের হেয় করে দেখানো হয়, সেইসব সাইট সরিয়ে দিয়ে ভারতের উচিত নিজের প্ল্যাটফর্ম শুরু করা।

এর পাশাপাশি কঙ্গনা ভিডিও শেষ করার আগে হাসিমুখে সকলকে ‘হ্যাপি লকডাউন’ বলেন।

এই ভিডিওর জন্যই হল বিপত্তি। কঙ্গনার বিরুদ্ধে মুম্বাই পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেছেন এক আইনজীবী।

অভিযোগে দাবি করা হয়েছে দুই বোন তাদের স্টারডমের অপব্যবহার করছেন। তাদের ফ্যানবেস, খ্যাতি, ক্ষমতা, ঐশ্বর্যের জোরে নিজেদের স্বার্থ সিদ্ধি করছেন।