বিশ্বজুড়ে মহামারি রূপ নিয়ে’ছে করোনাভাইরাস। প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। তবে আ’র মাত্র ৬ সপ্তাহের মধ্যেই চলে আসতে পারে করোনাভাইরা’সের ভ্যাকসিন। জুন মাসের মধ্যে কাজ করলেই এটি ছে’ড়ে দেয়া হবে মানুষের জন্য। এটি প্রথম দফায় দেয়া হবে বৃটে’নের এনএইচএস কর্মীদের মধ্যে।

এ ভ্যাকসিন তৈরিতে কাজ করে যাচ্ছে অক্স’ফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়। তাদের সঙ্গে আছে ফার্মাসিউ’টিক্যাল জায়ান্ট আস্ট্রাজেনকা। তারা এর উৎপাদন ও বৃহৎ পরিসরে বন্টনের দায়িত্বে আছে।  এই ভ্যাকসিন এখ’নো পরীক্ষা নিরিক্ষার মধ্যে রয়েছে। ত’বে সংশ্লিষ্টরা মনে কর’ছেন এটি কাজ করার সম্ভাবনা প্রচুর। এটি কাজ করলে কো’ভিড-১৯’র প্রথম ভ্যাকসিন আবিষ্কারকারী দেশ হতে চলেছে বৃটেন।

আস্ট্রাজেনকার সঙ্গে অক্সফোর্ডের সমঝোতার বিষ’য়টি বৃহস্পতিবার প্রকাশিত হয়েছে। দ্য মিরর জানি’য়েছে, এই সমঝোতার ফলে দ্রুতই বিশ্বের সকল প্রান্তে পৌঁছে দেয়া যাবে কোভিড-১৯’র ভ্যাকসিন। ইতিমধ্যে মান’বদেহে এই ভ্যাকসিন প্রবেশ করানো হয়েছে। এতে বৃটেনের শত শত স্বেচ্ছাসেবী অংশ নিয়েছে।

এ ব্যাপারে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যাল’য়ের প্রফেসর জন বেল বিবিসিকে জানান, জুন মা’সের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যেই মানব দেহে ভ্যাকসিনের প্রভাব সম্প’র্কে নিশ্চিত হওয়া যাবে। তখন এটির বিষয়ে নিশ্চিত হলে এনএইচএস কর্মীরা এর প্রথম ব্যবহা’রকারী হবে। 

এটি একবার কার্যকর প্রমাণিত হলেই সমগ্র বিশ্ব এটি উৎপা’দন শুরু করতে পারবে বলেও জানান তিনি